মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৮:০৪ পূর্বাহ্ন বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी
শিরোনাম :
ভাইয়ের হাতে ভাই খুনের ঘটনায় ঘাতক ভাই আটক নলছিটিতে কৃষকদের মাঝে বিণামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ জবিতে চৈত্র সংক্রান্তি উদযাপিত মোরেলগঞ্জে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৬ ব্যবসায়ীকে অর্থদন্ড রাজশাহীতে দুস্থদের মাঝে সত্যের জয় সামাজিক সংগঠনের ইফতার বিতরণ রামপালে সংখ্যালঘু শীল বংশের বারোয়ারী পুকুর দখল চেষ্টায় পূজা পরিষদের ক্ষোভ প্রকাশ বাকেরগঞ্জে তিন টি ইউনিয়নে প্রকৃত ভূমিহীন ও গৃহহীনদের (ক শ্রেণির) মধ্যে যাচাই-বাছাই নলছিটিতে ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত নারী প্রতিনিধিদের দায়িত্ব-কর্তব্য বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা রাজশাহীর বাঘায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে কলেজ ছাত্রের মৃত‍্যু বাগেরহাটে ধর্ষনের অভিযোগে অটোরিক্সা চালক আটক
নোটিশ:
প্রতিনিধি নিয়োগের জন্য যোগাযোগ করুন: ০১৭২৬ ০৫ ০৫ ০৮
বাকেরগঞ্জে গড়ে উঠছে শতাধিক অবৈধ ইট ভাটা, দূষিত হচ্ছে পরিবেশ
/ ১৩১ বার
আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ৬ জানুয়ারী, ২০২২, ১২:৫৬ অপরাহ্ন

 

বাকেরগঞ্জ প্রতিনিধি/
বাকেরগঞ্জ উপজেলা সদরে কলসকাঠী ইউনিয়নে গড়ে উঠছে শতাধিক অবৈধ ইট ভাটা। দূষিত হচ্ছে পরিবেশ। উজাড় করে দিচ্ছে বনসম্পদ। পরিবেশের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে লাইসেন্সবিহীন ইট ভাটার মালিকরা বাড়ি-ঘরের ভিতরে নির্মাণ করছে ইট ভাটা এবং টিনের চিমনি। বাকেরগঞ্জে উপজেলার কলসকাঠী ইউনিয়ন সহ গারুড়িয়া, দুধল, চরামদ্দি, ফরিদপুর, দাড়িয়াল ইউনিয়নে অবৈধভাবে ইট ভাটা গড়ে উঠেছে। ফসলীয় জমি ও বাড়ি-ঘড়ের ভিতরে ব্যাঙ্গের ছাতার মতো গড়ে উঠেছে অবৈধ ইট ভাটা। সরকারের নিষিদ্ধ ড্রাম চিমনি আইন অমান্য করে ইট ভাটা গুলোতে কয়লার বদলে কাঠের স্তুপ রেখে পোড়াঁনো হচ্ছে কাঠ। যার ফলে বন সম্পদ উজাড় করে পরিবেশ দূষিত, রবি শোষ্য, আমের মুকুল সহ সবকিছু নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। এমনকি ইট ব্যবসায়ীরা সরকারের কয়েক লক্ষ টাকা ভ্যট আয়কর ফাঁকি দিয়ে তাদের ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। কলসকাঠী এক ব্যবসায়ী জানান, বাড়ি-ঘড়ের ভিতর থেকে ইট ভাটা সরানো না হলে ফসলাদী ও শিশুরা বিভিন্ন ধরনের রোগে আক্রান্ত হয়ে যায়। পরিবেশ অধিদপ্তরের অশাধু কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে ইট ভাটার মালিকরা ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। বিগত বছরের তুলনায় এ বছর অনেক ড্রাম চিমনি ইট ভাটা দেখা গেছে সরেজমিনে।

এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য ইট ভাটা কলসকাঠি ৬ নং ওয়ার্ড এর পান্ডব নদীর চরে একতা ব্রিকস, শাপলা ব্রিকস, দুবাই ব্রিকস,গাজী ব্রিকস সহ প্রায় অর্ধশতাধিক ড্রাম চিমনি ইট ভাটা গড়ে উঠেছে। তারা নদীর চর থেকে মাটি কেটে ইট তৈরি করছে।

কলসকাঠী অধিকাংশ ইট ভাটার মালিক এখনও বাড়ি ঘড়ের ভিতরে জোড় করে ইট পোড়ানোর কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন। পরিবেশের ছাড়পত্র অনুযায়ী অনুমোদন নিয়ে কয়লার মাধ্যমে ইট পোড়াঁনোর অনুমতি থাকলেও নিয়ম নীতির তুয়াক্কা না করে তাদের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে কাঠ পুড়িয়ে। বাড়ি-ঘরের ভেতর থেকে ওই সকল ইটভাটা সরিয়ে নেওয়ার জন্য বিভিন্ন দপ্তর সহ ইউপি চেয়ারম্যান বরাবর ইতিমধ্যে লিখিত আবেদন করা হয়েছে।

এছাড়াও বাড়ি-ঘরের ভেতরে ইট ভাটা তৈরি করে পরিবেশ নষ্ট এবং বন সম্পদ নষ্ট করায় ইট ভাটার মালিকদের বিরুদ্ধে অচিরেই অভিযানের কথা জানিয়েছেন পরিবেশ কর্মকর্তা।

01726050506

এ জাতীয় আরো খবর
আমাদের ফেইসবুক পেইজ